Header Ads

কেন দেখবেন না দেবের কমান্ডো সিনেমা?

আপনি কি সিনেমা প্রেমী? আপনি কি সিনেমা দেখতে ভালবাসেন? আপনি কি বাংলাদেশের কমান্ডো সিনেমা দেখার জন্য অপেক্ষায় আছেন? যদি অপেক্ষায় থেকে থাকেন তবে আপনাকেই বলছি, এই সিনেমাটি দেখবেন নাএমনকি এই সিনেমাটিকে মনে প্রাণে ঘৃণা করুনকেন এই সিনেমাটি দেখবেন না এবং কেন ঘৃণা করবেন সেই বিষয়ে বিস্তারিত জানাবো আজকের এই ভিডিওতে 

বাংলাদেশের বহুল আলোচিত কমান্ডো সিনেমাটিতে অভিনয় করেছেন ভারতীয় বাংলা সিনেমার সুপার স্টার দেবশাপলা মিডিয়ার ব্যানারে নির্মিত এই ছবিটির প্রযোজক সেলিম খান এবং পরিচালক শামীম আহমেদমূলত এই ছবিটিতে মুসলমানদের জঙ্গি, সন্ত্রাসী ও ভয়াবহ খুনি হিসেবে পরিচিত করা হয়েছেহুজুরদেরকে সন্ত্রাসীদের গডফাদার হিসেবে চিত্রিত করা ছাড়াও বিশ্বনবী হযরত মোহাম্মদ সা:কে অত্যন্ত সুকৌশলে অবমাননা করা হয়েছে এই ছবিতে

এই ছবিতে মুসলমানদের ধর্মীয় পোশাক টুপি, পাঞ্জাবী ও পাগড়ীর ব্যবহার দেখানো হয়েছে জঙ্গি ও সন্ত্রাসীদের পোশাক হিসেবেযেটি মুসলমানদের জন্য খুবই অবমাননাকর 

এই সিনেমাটিতে মুসলমানদের পবিত্র স্থান মসজিদকে দেখানো হয়েছে জঙ্গি ও সন্ত্রাসীদের ঘাটি হিসেবেপবিত্র কালিমার নীচে বন্দুকের ছবি ব্যবহার করে এবং মহান আল্লাহর নামের আলিফকে বন্দুকের সাথে তুলনা করে সমগ্র মুসলিম জাতিকে সন্ত্রাসী হিসেবে বুঝানো হয়েছে 

সমগ্র বিশ্বের মুসলমানদের প্রিয় শ্লোগান নারায়ে তাকবীর” “আল্লাহু আকবরকে এই সিনেমায় জঙ্গি ও সন্ত্রাসীদের শ্লোগান হিসেবে দেখানো হয়েছেএই সিনেমার সবচেয়ে খারাপ দিক হচ্ছে, তারা ইচ্ছাকৃত ভাবে মহানবী হযরত মোহাম্মদ সা:কে অবমাননা করেছেএই ছবি জুড়ে বিভিন্ন স্থানে মোহাম্মদ সা: এর আঙটির ডিজাইন অংকন করা হয়েছে এবং এটিকে জঙ্গি ও সন্ত্রাসীদের প্রতীক হিসেবে বুঝানো হয়েছে

এই সিনেমাটি পরিষ্কারভাবে একটি চক্রান্তসিনেমাটির সাথে সংশ্লিষ্টরা ভালভাবেই জানেন এই মুভিটি বাংলাদেশে বিতর্কের সৃষ্টি করবেতাই তারা সরকারি সাহায্য নিয়ে পার পাওয়ার আশায় সিনেমার মধ্যে বাংলাদেশের পতাকা, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নাম এবং জয় বাংলা শ্লোগানকে খুবই ইতিবাচক ভাবে উপস্থাপন করেছে 

পরিশেষে এটাই বলা যায়, প্রত্যেক মানুষের এই সিনেমাটি বর্জন ও ঘৃণা করা উচিত এবং সাধ্যমতো এটার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করা উচিত

কোন মন্তব্য নেই

Blogger দ্বারা পরিচালিত.